কবি চন্দ্রাবতীর বসতভিটা ও মন্দির পরিদর্শন করেছেন মাউশির সাবেক ডিজি ফাহিমা খাতুন

0
15

সর্বশেষ আপডেট সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১ | ইমরান

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি:

মধ্যযুগের কীর্তিময়ী কবি চন্দ্রাবতীর বসতভিটা ও মন্দির পরিদর্শন করেছেন মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের সাবেক মহাপরিচালক এবং ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যান অধ্যাপক ফাহিমা খাতুন।

বৃহস্পতিবার ( ১৬ সেপ্টেম্বর) বিকেলে তিনি জেলা সদরের মাইজখাপন ইউনিয়নের কাচারীপাড়ায় প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের সংরক্ষিত পুরাকীর্তি মধ্যযুগীয় কীর্তিময়ী কবি চন্দ্রাবতীর মন্দির পরিদর্শন করেন। পরিদর্শনকালে তিনি মধ্যযুগের কবি চন্দ্রাবতীর বসতভিটা- মন্দির ও তাঁর পিতা মনসা মঙ্গল কাব্যের কবি দ্বিজ বংশি দাসের মন্দিরের স্থাপত্য নিদর্শন পরিদর্শন করে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

পরিদর্শনকালে অন্যন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শামীম আলম, সদর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাগুপ্তা হক,মাইজখাপন ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ রোকন উদ্দিন ভুইয়াসহ প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকতাবৃন্দ। এর আগে স্থানীয় সরকার ঢাকা বিভাগের উপপরিচালক (উপ সচিব) খাদিজা তাহিরা ববি কবি চন্দ্রাবতী মন্দির পরিদর্শন করেন।
এ সময় কবি চন্দ্রাবতী মন্দিরের সাইট পরিচারক মো. আমিনুল হক কবি চন্দ্রাবতীর মন্দির ও তাঁর পিতা দিজ বংশি দাসের মন্দির দুটি প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর সংরক্ষিত করা হয়েছে বলে অবহিত করেন। পরিদর্শনে আসা প্রতিনিধিদল কবি চন্দ্রাবতীর বসতভিটাটিও সংরক্ষণের জন্য প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের প্রতি আহবান জানান।

পূর্ববর্তী সংবাদপ্রেষণ ও নিজস্ব কর্মকর্তাদের মধ্যে দ্বন্দ্ব চরমে
পরবর্তী সংবাদহোসেনপুরে প্রাথমিক শিক্ষার্থীদের মাঝে স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন